ঢাকা -১৯

স্বতন্ত্র প্রার্থীর অফিস ভাঙচুর-কর্মীদের মারধরের অভিযোগ

‘অভিযোগ করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’
vandalized-at-the-office-of-independent-candidate
কাতলাপুরে ঈগল প্রতীকের নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর করার অভিযোগ উঠেছে। ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা-১৯ (সাভার) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী তালুকদার মো. তৌহিদ জং মুরাদের নির্বাচনী অফিসে ভাঙচুর এবং তার কর্মী-সমর্থকদের হুমকি ও মারধরের অভিযোগ উঠেছে নৌকা প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের বিরুদ্ধে।

আজ মঙ্গলবার সকালে এই ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ করেছেন মুরাদের কর্মী ও পৌর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সভাপতি আব্দুল হালিম।

হালিম বলেন, তিনি পৌরসভার ৭৩টি কেন্দ্রের ঈগল প্রতীকের নির্বাচনী পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন। আজ ভোররাত ৩টার দিকে পৌরসভার কাতলাপুর এলাকার ঈগল প্রতীকের নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর করেন সাভার সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম রুবেল, সাবেক যুবদল নেতা বাবু ও পলাশ। রুবেল সাভার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও সাভার উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুরুল আলম রাজীবের শ্যালক ও নৌকা প্রতীকের সমর্থক। অফিস ভাঙচুর ছাড়াও আমাদের প্রতিনিয়ত হুমকি দিচ্ছেন তারা। আমরা থানা ও নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ দায়ের করব।

বিষয়টি নিয়ে জানতে সাভার সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম রুবেলের নম্বরে ফোন করলেও তিনি ধরেননি।

এই আসনের আরেক স্বতন্ত্র প্রার্থী, আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ সাইফুল ইসলামও (ট্রাক প্রতীক) তার নির্বাচনী অফিস স্থাপনে বাঁধা ও কর্মীদের মারধরের অভিযোগ এনে সাভার মডেল থানায় অভিযোগ করেছেন নৌকা প্রতীকের কর্মী-সমর্থকদের বিরুদ্ধে।

সাইফুল ইসলাম বলেন, পৌর নামাগেন্ডা এলাকায় আমার নির্বাচনী অফিস স্থাপনে বাঁধা ও কর্মী-সমর্থকদের মারধর করেছে নৌকার কর্মী ও সমর্থকরা। এ ঘটনায় সাভার মডেল থানা ও নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ করা হয়েছে।

জানতে চাইলে সাভার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আকবর আলী খান দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, কাতলাপুর এলাকার ঘটনাটি আমি জানি না। তবে নামাগেন্ডার ঘটনায় থানায় অভিযোগ করা হয়েছে। মূলত এখন তো অভিযোগ আসতেই থাকবে। আমরা যথাযথ তদন্ত শেষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ফেরদৌস ওয়াহিদ ডেইলি স্টারকে বলেন, এ বিষয়ে আমাদের কাছে কেউ মৌখিক বা লিখিত অভিযোগ করেনি। অভিযোগ করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

The Daily Star  | English

World Bank suggests unified exchange rate, further monetary tightening

The World Bank has recommended Bangladesh put in place a unified exchange rate and tighten monetary policy further in order to tame persistently high inflationary pressure and end the foreign exchange crisis.

6h ago