যুক্তরাজ্য

রানির শেষকৃত্যে স্থবির হয়ে পড়বে যুক্তরাজ্যের দৈনন্দিন জীবন

যুক্তরাজ্যের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ গত ৮ সেপ্টেম্বর ৯৬ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুর ঠিক ১০ দিন পর, আগামীকাল সোমবার তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন ভক্তরা। ছবি: রয়টার্স
রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন ভক্তরা। ছবি: রয়টার্স

যুক্তরাজ্যের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ গত ৮ সেপ্টেম্বর ৯৬ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুর ঠিক ১০ দিন পর, আগামীকাল সোমবার তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

এই দিনটিতে যুক্তরাজ্যের দৈনন্দিন জীবন স্থবির হয়ে পড়বে। 

আজ মার্কিং সংবাদ মাধ্যম সিএনএনের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে।

জনসাধারণ যাতে প্রয়াত রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে পারে, সে জন্য দিনটিকে সরকারি ছুটি হিসেবে ঘোষণা দিয়েছে সরকার। অর্থাৎ, সব ব্যাংক, লন্ডনের পুঁজিবাজার, সরকারি কার্যালয় ও বেশিরভাগ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে।

যুক্তরাজ্যের প্রথাগত সরকারি ছুটির চেয়ে সোমবারের ছুটি অনেক দিক দিয়েই ভিন্ন। সাধারণত ছুটির মৌসুমে বাড়তি চাহিদা ও মুনাফার কথা চিন্তা করে অনেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা হয়। কিন্তু এসব প্রতিষ্ঠানও রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে তাদের দরজা বন্ধ রাখছে।

অর্থনীতির ওপর প্রভাব

জাতীয় পরিসংখ্যান কার্যালয়ের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ব্যবসায়িক কার্যক্রম কমে গেলে যুক্তরাজ্যের অর্থনীতির ওপর নেতিবাচক প্রভাব পড়তে পারে। জুনে রানির সিংহাসনে বসার ৭০ বছর উপলক্ষে ২ দিনের ছুটিতে সে মাসের জিডিপি শূন্য দশমিক ৬ শতাংশ কমে গেছিল।

বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠান এজে বেলের বিশ্লেষক ড্যানি হিউসন জানান, অর্থনীতিতে ছুটির প্রভাব কেমন হবে, তা হিসেব করা এতো সহজ নয়। তবে যুক্তরাজ্য 'ইতোমধ্যে মন্দার দিকে আগাচ্ছে, সুতরাং এ অবস্থায় ব্যাবসায়িক কার্যক্রম কমলে তার জন্য কড়া মূল্য চুকাতে হবে।'

যা খোলা থাকছে

সিনেমা প্রদর্শনকারী প্রতিষ্ঠান 'ভ্যু' তাদের কিছু হল খোলা রাখবে। হলগুলোতে রানির শেষকৃত্য সরাসরি দেখানো হবে। স্থানীয় সময় সকাল ১০টা থেকে সম্প্রচার শুরু হবে। ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবেতে অনুষ্ঠিতব্য শেষকৃত্যের মূল অনুষ্ঠান এবং রানির শবযাত্রার কিছু অংশ দেখানো হবে।

সিনেমা হলে বসে শেষকৃত্য দেখার জন্য দর্শকদের কোনো টিকিট কাটতে হবে না এবং তাদেরকে বিনামূল্যে ১ বোতল পানি দেওয়া হবে। তবে তারা অন্য সময়ের মতো পপকর্ন বা অন্য কোনো খাবার ও পানীয় কিনতে পারবেন না।

যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন অংশে বেশ কিছু পানশালাও খোলা থাকবে। প্রতিটি শাখায় রানির শেষকৃত্য সরাসরি সম্প্রচার করা হবে।

রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানানো হচ্ছে। ছবি: রয়টার্স
রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানানো হচ্ছে। ছবি: রয়টার্স

ইংল্যান্ড, ওয়েলস ও স্কটল্যান্ডে প্রায় ২ হাজার ৭০০ পানশালা পরিচালনা করে গ্রিন কিং। প্রতিষ্ঠানের মুখপাত্র জানান, 'সম্প্রদায়ের সদস্যরা যাতে একত্রিত হয়ে রানির জন্য শোক প্রকাশ করতে পারেন এবং তার জীবনের বিভিন্ন ঘটনা নিয়ে আলোচনা করতে পারেন, সেজন্য সোমবার আমাদের পাবগুলো খোলা থাকবে।'

জেডি ওয়েদারস্পুন যুক্তরাজ্যে ৮৪০টি পানশালা পরিচালনা করে। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে তারা দুপুর ১টার পর পানশালা খুলবে। তবে লন্ডনের কেন্দ্রের শাখা এবং রেলস্টেশন ও বিমানবন্দর শাখাগুলো আগের সময় অনুযায়ী খোলা থাকবে।

লন্ডনের হোটেলগুলো দেশি-বিদেশি অতিথিদের স্থান দিতে হিমশিম খাচ্ছে। প্রায় সব হোটেলের সব আসন পূর্ণ হয়ে গেছে এবং কোনো কোনো ক্ষেত্রে তিন গুণ ভাড়াও গুনতে হচ্ছে অনেককে।

যুক্তরাজ্যের সড়ক ও রেলপথ নেটওয়ার্ক কিছু সময়ের জন্য বন্ধ থাকতে পারে। তবে বাকি সময়টুকু ব্যস্ত থাকার সম্ভাবনা বেশি।

শেষকৃত্য চলাকালীন সময় লন্ডনের হিথরো বিমানবন্দর কেন্দ্রীয় লন্ডনে শব্দ কমাতে ১৫ শতাংশ ফ্লাইট পরিবর্তন করতে যাচ্ছে। বেশ কিছু ফ্লাইট বাতিলের সম্ভাবনা রয়েছে আগামীকাল।

যা বন্ধ থাকছে

আগামীকাল যুক্তরাজ্যে পিজা হাট বা কেএফসির মতো ফাস্ট ফুড খেতে হলে বেশ বেগ পেতে হবে। বিকেল ৫টা পর্যন্ত ম্যাকডোনাল্ডসের ১ হাজার ২০০ দোকানের সবগুলোই বন্ধ থাকবে।

পিৎজা হাটের রেস্তোরাঁগুলো দুপুর ২টা পর্যন্ত বন্ধ থাকবে।

জনপ্রিয় বেকারি গ্রেগস জানিয়েছে, তারা তাদের ২ হাজার দোকান দিনভর বন্ধ রাখবে। কিছু ফ্র্যাঞ্চাইজি শাখা খোলা থাকতে পারে।

ভ্যু ছাড়া প্রায় সব সিনেমা হলই বন্ধ থাকবে। রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে নাট্যমঞ্চগুলো তাদের সব প্রদর্শনী বাতিল করেছে।

রাজপরিবারের সদস্যরা রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে এগিয়ে আসছেন। ছবি: রয়টার্স
রাজপরিবারের সদস্যরা রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে এগিয়ে আসছেন। ছবি: রয়টার্স

অনেক সুপারস্টোর, মুদি ও মনোহারি দোকানও বন্ধ থাকছে। ফলে সংশ্লিষ্টরা নাগরিকদের নিত্যপণ্যের মজুদ রাখার উপদেশ দিয়েছেন।

যুক্তরাজ্যের সবচেয়ে বড় সুপারস্টোর টেসকো জানিয়েছে, তারা তাদের সবচেয়ে বড় শাখাগুলো সোমবার বন্ধ রাখবে। ছোট শাখাগুলো সন্ধ্যার দিকে খুলবে। সেইনসবারি, আলদি ও মরিসনস এর মতো বড় সুপারস্টোরগুলোও জানিয়েছে, তারা তাদের শাখাগুলো বন্ধ রাখবে।

হ্যারডস, আইকিয়া, এইচ অ্যান্ড এম, জন লুইস, আরগোস ও প্রাইমার্কের মতো খুচরো বিক্রেতারাও তাদের দোকানগুলো বন্ধ রাখার পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে।

আইফোন নির্মাতা অ্যাপল জানিয়েছে, তারা সোমবার যুক্তরাজ্যের ৩৯টি শাখা বন্ধ রাখবে।

কেন্দ্রীয় লন্ডনের কিছু শাখা বাদে সব শাখা বন্ধ রাখবে মার্ক্স অ্যান্ড স্পেনসার।

Comments