এশিয়া কাপ ২০২৩

নেপালকে ১০ উইকেটে হারিয়ে সুপার ফোরে ভারত

রান তাড়ায় রোহিত শর্মা ও শুবমান গিল কোনো সুযোগ দিলেন না প্রতিপক্ষকে।
ছবি: টুইটার

টপ ও লোয়ার মিডল অর্ডারের কল্যাণে দুইশ ছাড়িয়ে আরও সামনে গেল নেপালের সংগ্রহ। এরপর বৃষ্টির বাগড়ায় ম্যাচের দৈর্ঘ্য কমায় ভারতের লক্ষ্য ছোট হয়ে এলো। সেটা তাড়ায় রোহিত শর্মা ও শুবমান গিল কোনো সুযোগ দিলেন না প্রতিপক্ষকে। ১০ উইকেটের বিশাল জয়ে এশিয়া কাপের সুপার ফোর নিশ্চিত হলো ভারতীয়দের।

সোমবার পাল্লেকেলেতে গ্রুপ পর্বের ম্যাচে নেপালকে উড়িয়ে দিয়েছে রোহিতের নেতৃত্বাধীন দল। বৃষ্টির বাগড়ায় ডিএলএস পদ্ধতিতে তাদের সামনে ছিল ২৩ ওভারে ১৪৭ রান তাড়ার চ্যালেঞ্জ। দুই ওপেনারের অপরাজিত আগ্রাসী ফিফটিতে ১৭ বল হাতে রেখে অনায়াসে লক্ষ্যে পৌঁছায় ভারত। এই জয়ে 'এ' গ্রুপ থেকে সুপার ফোরে পাকিস্তানের সঙ্গী হলো তারা।

দুই ম্যাচে পাকিস্তানের অর্জন ৩ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে ভারতও পেয়েছে ৩ পয়েন্ট। তবে নেট রান রেটে পাকিস্তানের (+৪.৭৬০) চেয়ে পিছিয়ে আছে ভারত (+১.০২৮)। দুই ম্যাচ খেলে কোনো পয়েন্ট পায়নি নেপাল।

অধিনায়কোচিত ব্যাটিংয়ে রোহিত ৫৯ বলে খেলেন ৭৪ রানের ইনিংস। তার ব্যাট থেকে আসে ৬ চার ও ৫ ছক্কা। আরেক ওপেনার গিল ৬২ বলে করেন ৬৭ রান। তিনি মারেন ৮ চার ও ১ ছক্কা।

এর আগে টস হেরে আগে ব্যাটিংয়ে নামা নেপাল স্কোরবোর্ডে জমা করেছিল ২৩০ রানের পুঁজি। তবে পুরো ৫০ ওভার খেলতে পারেনি তারা। ৪৮.২ ওভারে অলআউট হয় তুলনামূলক অনেক দুর্বল দলটি। তবে ভারতের বোলারদের বিপরীতে তাদের ব্যাটারদের পারফরম্যান্স ছিল চোখে পড়ার মতো।

নেপালের হয়ে সর্বোচ্চ ৫৮ রান করেন আসিফ শেখ। ৯৭ বল মোকাবিলায় তিনি ৮ চার মারেন। কুশল ভুরতেলের সঙ্গে উদ্বোধনী জুটিতে ৬৫ রান যোগ করেন তিনি। ভুরতেল খেলেন ২৫ বলে ৩৮ বলের ঝড়ো ইনিংস। ভালো শুরুর পর খেই হারায় নেপাল। তাদের মিডল অর্ডারকে নাড়িয়ে দেন বাঁহাতি স্পিনার রবীন্দ্র জাদেজা।

১৪৪ রানে ৬ উইকেট পড়ার পর সোমপাল কামি দলের হাল ধরেন। সপ্তম উইকেটে দিপেন্দ্র সিংয়ের সঙ্গে ৫৬ বলে ৫০ ও অষ্টম উইকেটে সন্দিপ লামিছানের সঙ্গে ৩৭ বলে ৩৪ রান যোগ করেন তিনি। আটে নেমে করেন ৫৬ বলে ৪৮ রান। ভারতের হয়ে জাদেজা ৪০ রানে নেন ৩ উইকেট। সমান উইকেট নিতে ৬১ রান খরচ করেন মোহাম্মদ সিরাজ।

Comments