ফুটবল

মেসির চোটে পড়া নিয়ে যা বললেন মায়ামি কোচ

ম্যাচের ৩৭তম মিনিটে মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে যান আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড মেসি।
লিওনেল মেসি
ছবি: এএফপি

ফেরাটা সুখকর হলো না লিওনেল মেসির জন্য। পেশির দুর্বলতায় জাতীয় দল ও ক্লাব মিলিয়ে দুটি ম্যাচ মিস করার পর মাঠে নেমেই পড়লেন চোটে। সেকারণে টরোন্টোর বিপক্ষে প্রথমার্ধেই তাকে বদলি করলেন কোচ জেরার্দো মার্তিনো। তবে বাকিটা সময় মেসিকে ছাড়া খেলেও বড় ব্যবধানে জিতল ইন্টার মায়ামি।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় সকালে মেজর সকার লিগে (এমএলএস) টরোন্টোকে ৪-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে মায়ামি। ম্যাচের ৩৭তম মিনিটে মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে যান আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড মেসি। এর দুই মিনিট আগে খুড়িয়ে খুড়িয়ে মাঠ ছাড়েন তার সাবেক ক্লাব বার্সেলোনার লম্বা সময়ের সতীর্থ জর্দি আলবা। তাই পূর্ণ পয়েন্ট পেলেও দুশ্চিন্তার ভাঁজ পড়েছে মার্তিনোর কপালে।

ম্যাচের পর দুই শিষ্যের চোটের বিষয়ে গণমাধ্যমের কাছে মায়ামি কোচ বলেছেন, 'তারা মাঠ ছাড়তে বাধ্য হয়েছে। সামনের দিনগুলোতে আমরা তাদের (শারীরিক অবস্থার) মূল্যায়ন করব।'

পেশির দুর্বলতায় বিশ্বকাপ বাছাইয়ে আর্জেন্টিনার হয়ে বলিভিয়ার বিপক্ষে আর এমএলএসে মায়ামির হয়ে আটলান্টা ইউনাইটেডের বিপক্ষে খেলতে পারেননি মেসি। তবে আর্জেন্টিনা জিতলেও হেরে যায় মায়ামি। সামনে রয়েছে মায়ামির ব্যস্ত সূচি। আগামী ১৭ দিনের মধ্যে ইউএস ওপেন কাপের ফাইনালসহ পাঁচটি ম্যাচ খেলবে তারা। সেগুলোতে মেসিকে না পেলে বড় বিপদে পড়তে পারে ক্লাবটি।

প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ের তৃতীয় মিনিটে মায়ামিকে এগিয়ে দেন ফাকুন্দো ফারিয়াস। দ্বিতীয়ার্ধের খেলা শুরুর পর নবম মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন রবার্ট টেইলর। ম্যাচের ৭৩তম মিনিটে নোয়াহ অ্যালেনের গোলেও অবদান রাখেন তিনি। সেখানেই থামেননি বিশ্বকাপজয়ী মেসির বদলি হিসেবে নামা স্ট্রাইকার। নির্ধারিত সময়ের তিন মিনিট আগে আরও একবার জাল খুঁজে নেন টেইলর।

এই জয়ে ইস্টার্ন কনফারেন্সের পয়েন্ট তালিকার ১৩ নম্বরে উঠে এসেছে মায়ামি। ফলে এমএলএস কাপের প্লে-অফে খেলার স্বপ্ন একটু উজ্জ্বল হয়েছে তাদের। ২৮ ম্যাচে তাদের অর্জন ৩১ পয়েন্ট। প্লে-অফে খেলতে হলে পয়েন্ট তালিকার সেরা নয়ের মধ্যে থাকতে হবে মায়ামিকে। বর্তমানে নয়ে অবস্থান করা ডি. সি. ইউনাইটেডের পয়েন্ট ৩০ ম্যাচে ৩৬।

Comments

The Daily Star  | English

2 MRT lines may miss deadline

The metro rail authorities are likely to miss the 2030 deadline for completing two of the six planned metro lines in Dhaka as they have not yet started carrying out feasibility studies for the two lines.

8h ago