অর্থনীতি

ঢাকা বাণিজ্য মেলা থেকে ৩৯২ কোটি টাকার রপ্তানি আদেশ

এবারের মেলায় ৩০৪ স্টল ও প্যাভিলিয়নের মধ্যে নয়টি ছিল ভারত, সিঙ্গাপুর, হংকং, ইন্দোনেশিয়া ও তুরস্কের প্রতিষ্ঠানগুলোর।
বাণিজ্য মেলা
এ বছর ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা (ডিআইটিএফ) থেকে রপ্তানি আদেশ এর আগের বছরের তুলনায় ১৭ শতাংশ বেশি এসেছে। ছবি: সংগৃহীত

সদ্য সমাপ্ত ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলার (ডিআইটিএফ) ২৮তম আসরে ৩৯২ কোটি টাকার রপ্তানি আদেশ এসেছে বলে জানিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। এটি এর আগের বারের তুলনায় ১৭ শতাংশ বেশি।

এ ছাড়াও, রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরো (ইপিবি) আয়োজিত মাসব্যাপী এ আয়োজনে ক্রেতারা প্রায় ৪০০ কোটি টাকার পণ্য কিনেছেন। এটি আগের বছরের তুলনায় প্রায় ১৫ শতাংশ বেশি।

গতকাল মঙ্গলবার ঢাকার পূর্বাচলে বাংলাদেশ-চায়না ফ্রেন্ডশিপ এক্সিবিশন সেন্টারে এ মেলা শেষ হয়।

সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু।

'দেশের রপ্তানি বাড়াতে আগামী বছর থেকে আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলাকে আরও বৈচিত্র্যময় করা হবে' উল্লেখ করে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আহসানুল ইসলাম টিটু বলেন, 'আরও বেশি বিদেশি ক্রেতা আকৃষ্ট করতে আগামী বছর মেলায় সেমিনার-সিম্পোজিয়ামের আয়োজন করা হবে।'

দেশি-বিদেশি ব্যবসায়ীদের অংশগ্রহণ বাড়াতে প্রয়োজনীয় সব আয়োজন নিশ্চিত করা হবে বলেও জানান তিনি।

'সবকিছু ঠিকভাবে আয়োজন করতে পারলে ২০৩০ সালের মধ্যে বাংলাদেশ ১০০ বিলিয়ন ডলার রপ্তানি আয়ের লক্ষ্য অর্জন করতে পারবে,' যোগ করেন তিনি।

এবারের মেলায় ৩০৪ স্টল ও প্যাভিলিয়নের মধ্যে নয়টি ছিল ভারত, সিঙ্গাপুর, হংকং, ইন্দোনেশিয়া ও তুরস্কের প্রতিষ্ঠানগুলোর।

মেলায় ভালো করার জন্য কয়েকটি বিভাগে ৪১ স্টলকে পুরস্কৃত করা হয়।

সমাপনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব তপন কান্তি ঘোষ।

অনুষ্ঠানে আরও অনেকের মধ্যে বক্তব্য রাখেন রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর (এফবিসিআই) ভাইস চেয়ারম্যান এ এইচ এম আহসান ও এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি মাহবুবুল আলম।

Comments