নরসিংদীতে ট্রাক-মাইক্রোবাসের সংঘর্ষে নিহত ৭, আহত ৪

ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের শিবপুর উপজেলার ঘাসিরদিয়া এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।
ছবি: সংগৃহীত

ছুটির দিন উপলক্ষে গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে সিলেটের উদ্দেশে রওনা হন ঢাকার সাভার এলাকার এসবি নিটিং কোম্পানির ১১ কর্মকর্তা-কর্মচারী। নরসিংদী পৌঁছানোর পর ট্রাক-মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ৭ জন নিহত ও গুরুতর আহত হয়েছেন আরও ৪ জন।

আহতদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ২টার পর ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের শিবপুর উপজেলার ঘাসিরদিয়া এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

শিবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ফিরোজ তালুকদার দ্য ডেইলি স্টারকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

নিহতরা হলেন, টাঙ্গাইলের দেলদোয়ার থানার মীর মোতাহার হোসেনের ছেলে সবুজ মিয়া (৩২), ঝালকাঠির রাজাপুর থানার আব্দুল গণি হাওলাদারের ছেলে আল আমিন হাওলাদার (৩৭), মির্জাপুরের আইয়ুব খানের ছেলে আল-আমিন (২৭), মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলার তোফায়েল হাওলাদারের ছেলে আব্দুল আওয়াল (৪০), বরিশালের মুলাদী এলাকার মুজিবুর হাওলাদারের ছেলে আরিয়ান ওরফে রায়হান (২৫), জামালপুরের সরিষাবাড়ির দুদু মিয়ার ছেলে রাজু মিয়া (৩৭) ও গাড়িচালক মো. নাসির। প্রাথমিকভাবে আহতদের পরিচয় নিশ্চিত করা যায়নি।

নিহত আল-আমিন খানের ছোট ভাই আদিফ খান দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'তারা সাভারে ইপিজেড এলাকায় এসবি নিটিং কোম্পানিতে মার্চেন্টাইজার হিসেবে চাকরি করতেন। গতকাল রাত ১২টার দিকে বেড়ানোর উদ্দেশে সিলেটে যাচ্ছিলেন। আমি সিলেটে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করি এবং উনাদের দেখা করার কথা ছিল। কিন্তু বাড়ি থেকে আমার মা কল দিয়ে জানাল, আমার ভাই সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছে।'

তিনি আরও বলেন, 'খবর পেয়ে আমি নরসিংদী সদর হাসপালে মরদেহ গ্রহণের জন্য দাঁড়িয়ে আছি।' তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় কয়েকবার কান্নায় ভেঙে পড়েন।

ফায়ার সার্ভিস ও হাইওয়ে পুলিশ জানিয়েছে, সাভার থেকে ছেড়ে আসা একটি মাইক্রোবাস সিলেটের উদ্দেশে যাচ্ছিল। মাইক্রোবাসটি শিবপুরের ঘাসিরদিয়া এলাকায় পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাকের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হলে ঘটনাস্থলেই ৫ জন নিহত হয়। গুরুতর আহত অবস্থায় ৬ জনকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে আহতদের মধ্যে মারা যায় আরও ২ জন। আহত বাকি ৪ জনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

নরসিংদী সদর হাসপাতালে ছিলেন এসবি নিটিং কোম্পানির কমার্সিয়াল ম্যানেজার আব্দুল হামিদ। তিনি দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'ব্যক্তিগত উদ্যোগে তারা ১১ জন গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১১টার দিকে সিলেটে বেড়ানোর জন্য বের হয়েছিলেন। দুর্ঘটনার পর পুলিশের মাধ্যমে জানতে পেরে আমরা ঘটনাস্থলে এসেছি।' 

নরসিংদী সদর হাসপাতালে আরএমও মোহাম্মদ আবুল বাসার (কমল) বলেন, 'রাত ৩টার দিকে নিহত অবস্থায় ৭ জন এবং আহত অবস্থায় ৪ জনকে নিয়ে আসা হয়েছে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে আহতদের ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে মরদেহ হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে।'

ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ফিরোজ তালুকদার আরও বলেন, 'মাইক্রোবাসটির উচ্চগতি দুর্ঘটনার মূল কারণ বলে আমরা প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি। ট্রাকচালককে আটক ও ট্রাক জব্দ করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।'

নরসিংদীর জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) অনির্বান চৌধুরী বলেন, 'মরদেহগুলো নরসিংদী সদর হাদপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে এবং আমরা ৭ জনের পরিচয় নিশ্চিত করতে পেরেছি এবং আহত ৪ জনের পরিচয় নিশ্চিত করা যায়নি। গাড়ির চালকদের লাইসেন্স ঠিক আছে কি না তদন্ত শেষ করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।'

 

Comments

The Daily Star  | English

Secondary schools, colleges to open from Sunday amid heatwave

The government today decided to reopen secondary schools, colleges, madrasas, and technical education institutions and asked the authorities concerned to resume regular classes and activities in those institutes from Sunday amid the ongoing heatwave

3h ago