অপরাধ ও বিচার

নর্থ সাউথের সাবেক ট্রাস্টি এম এ কাশেমের জামিন স্থগিত

অর্থ আত্মসাতের মামলায় নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ট্রাস্টি রেহানা রহমানের জামিন বহাল রাখলেও এম এ কাশেমকে দেওয়া হাইকোর্টের জামিন আগামী ২১ নভেম্বর পর্যন্ত স্থগিত করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ।
২১ আগস্ট, গ্রেনেড হামলা
ফাইল ছবি

অর্থ আত্মসাতের মামলায় নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ট্রাস্টি রেহানা রহমানের জামিন বহাল রাখলেও এম এ কাশেমকে দেওয়া হাইকোর্টের জামিন আগামী ২১ নভেম্বর পর্যন্ত স্থগিত করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ।

আজ রোববার হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে দুদকের আবেদনের শুনানি নিয়ে বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বাধীন চেম্বার জজ আদালত এ আদেশ দেন।

৩০৪ কোটি টাকা অর্থপাচারের এ মামলায় এম এ কাশেমকে জামিন দেওয়া হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে ২১ নভেম্বরের মধ্যে সুপ্রিম কোর্টে 'লিভ টু আপিল' আবেদন করতেও দুদককে নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

আইনজীবী সাঈদ আহমেদ রেজা ডেইলি স্টারকে বলেন, 'এম এ কাশেমের জামিন স্থগিত করে দুদকের আবেদনটি আগামী ২১ নভেম্বর আপিল বিভাগের নিয়মিত বেঞ্চে শুনানির জন্য নির্ধারণ করে দিয়েছেন চেম্বার আদালত। রেহানা রহমানের জামিন স্থগিতের আবেদনে 'নো অর্ডার' দিয়েছেন। জামিন বহাল থাকায় রেহানা রহমানের কারাগার থেকে মুক্তি পেতে বাধা নেই।'

এর আগে রোববার এই মামলায় নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (এনএসইউ) ট্রাস্টি বোর্ডের ২ প্রাক্তন সদস্য এম এ কাশেম ও রেহানা রহমানকে শর্তসাপেক্ষে জামিন দেওয়ার যে রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট, তার ওপর স্থগিতাদেশ চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে ২টি পৃথক আবেদন করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

এ বিষয়ে দুদকের আইনজীবী খুরশিদ আলম খান দ্য ডেইলি স্টারকে জানান, আবেদনে দুদক বলেছে, এম এ কাশেম ও রেহানা রহমানের বিরুদ্ধে দুর্নীতির সুনির্দিষ্ট অভিযোগ আছে। তাই এ মামলায় তাদের জামিন দেওয়া যাবে না।

গত ১০ নভেম্বর এ মামলায় এম এ কাশেম ও রেহানা রহমানকে শর্তসাপেক্ষে জামিন দেন হাইকোর্ট।

জামিনের শর্ত অনুসারে, অভিযুক্ত কাশেম ও রেহানা এনএসইউ চত্বরে প্রবেশ করতে পারবেন না এবং সংশ্লিষ্ট আদালতের অনুমতি ছাড়া দেশত্যাগ করতে পারবেন না। 

Comments