অপরাধ ও বিচার
সাংবাদিক নাদিম হত্যা

অভিযুক্ত চেয়ারম্যান বাবু ও ছেলে রিফাতের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি

জামালপুরের বকশীগঞ্জে সাংবাদিক গোলাম রব্বানী নাদিম হত্যাকাণ্ডে মূল অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল আলম বাবু এবং তার ছেলে বকশীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক রিফাত হোসেনের বিরুদ্ধে এখনো দল থেকে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।
সাংবাদিক গোলাম রব্বানী নাদিম হত্যাকাণ্ডে মূল অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল আলম বাবু এবং তার ছেলে বকশীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক রিফাত হোসেন। ছবি: সংগৃহীত

জামালপুরের বকশীগঞ্জে সাংবাদিক গোলাম রব্বানী নাদিম হত্যাকাণ্ডে মূল অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল আলম বাবু এবং তার ছেলে বকশীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক রিফাত হোসেনের বিরুদ্ধে এখনো দল থেকে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।

এ বিষয়ে বকশীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহীনা বেগম আজ শুক্রবার দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'জেলা আওয়ামী লীগের সঙ্গে কথা হয়েছে। খুব দ্রুত চেয়ারম্যান মাহমুদুল আলম বাবুকে দল থেকে বহিষ্কার করা হবে।' 

অপরদিকে, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি খাইরুল ইসলাম ডেইলি স্টারকে বলেন, 'রিফাত হোসেনের বিরুদ্ধে এখনো কোনো সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। আমরা দ্রুত সময়ের মধ্যে আলোচনা সাপেক্ষে একটা সিদ্ধান্ত নেব।'

এর আগে, এপ্রিল মাসে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহীনা বেগমের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও দলীয় বিশৃঙ্খলা নিয়ে প্রতিবেদন করায় সাংবাদিক নাদিমের ওপর হামলা হয়েছিল।

বাবু চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাহীনা বেগমের ঘনিষ্ঠ বলে স্থানীয়রা জানান।

Comments