রাজনীতি

আত্মসমর্পণের পর জামিন পেলেন বিএনপি নেতা ইশরাক

বিএনপি নেতা ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেনকে আজ একটি মামলায় জামিন দিয়েছেন আদালত। নাশকতার অভিযোগে ২০২০ সালের নভেম্বরে মতিঝিল থানায় এই মামলাটি দায়ের করা হয়েছিল।
Ishraque Hossain
ইশরাক হোসেন

বিএনপি নেতা ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেনকে আজ একটি মামলায় জামিন দিয়েছেন আদালত। নাশকতার অভিযোগে ২০২০ সালের নভেম্বরে মতিঝিল থানায় এই মামলাটি দায়ের করা হয়েছিল।

মামলায় ইশরাক তার আইনজীবীর মাধ্যমে আত্মসমর্পণ করে জামিন চাইলে ঢাকা মহানগর হাকিম আরাফাতুল রাকিব এ আদেশ দেন।

হাজিরা না হয়ে আইনজীবীর মাধ্যমে সময় চেয়ে আবেদন করায় এর আগে গত বছরের ৫ ডিসেম্বর ঢাকার আরেকটি আদালত ইশরাকের জামিন বাতিল করে পরোয়ানা জারি করেছিলেন।

নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে লিফলেট বিতরণের সময় গত বছরের ৬ এপ্রিল এই মামলায় ইশরাককে গ্রেপ্তার করা হয়। একই বছরের ১২ এপ্রিল জামিনে মুক্তি পান তিনি।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, ইশরাকের নেতৃত্বে একদল নেতা ২০২০ সালের ১২ নভেম্বর ঢাকার মতিঝিল এলাকায় নাশকতামূলক কর্মকাণ্ড চালানোর উদ্দেশ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক কলোনির সামনে জড়ো হয়েছিলেন। পরে মতিঝিল থানায় ইশরাকসহ ৩১ জনের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইন-১৯৭৪-এ মামলা করা হয়।

মামলার পরিপ্রেক্ষিতে ইশরাক হোসেন আগাম জামিন চেয়ে ২০২০ সালের ২০ ডিসেম্বর হাইকোর্টে আত্মসমর্পণ করেন।

শুনানির পর, হাইকোর্ট তাকে ২০২১ সালের ৫ জানুয়ারি পর্যন্ত জামিন দেন। জামিনের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগেই হাইকোর্ট তাকে নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণের নির্দেশ দেন।

আদালতের আদেশ অনুযায়ী ইশরাক ওই মামলায় জামিন চেয়ে একই বছরের ৪ জানুয়ারি ঢাকার মহানগর দায়রা জজ আদালতে আত্মসমর্পণ করেন।

বিচারক কে এম এমরুল কায়েশ তখন তাকে জামিন দেন এবং এই বিষয়ে পূর্ণ শুনানির জন্য ২০২১ সালের ১৮ আগস্ট দিন ধার্য করেন।

তবে জামিন আবেদনের শুনানির সময় আদালতে অনুপস্থিত ছিলেন ইশারাক হোসেন। এরপর আদালত তার জামিন বাতিল করে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতকে তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির নির্দেশ দেন।

আদালতের আদেশ পাওয়ার পর গত বছরের ২ জানুয়ারি মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আরাফাতুল রাকিব তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন।

Comments