ফুটবল

২০৩০ ফুটবল বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে তিনটি মহাদেশজুড়ে

এক বিবৃতিতে আগামী ২০৩০ বিশ্বকাপের স্বাগতিক দেশগুলোর নাম ঘোষণা করেছে ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা।
ছবি: এএফপি

প্রথমবারের মতো তিনটি মহাদেশ জুড়ে অনুষ্ঠিত হবে ফিফা বিশ্বকাপ। সব মিলিয়ে ছয়টি দেশের মাঠে গড়াবে ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর। যৌথভাবে ২০৩০ বিশ্বকাপের মূল আয়োজক থাকবে মরক্কো, স্পেন ও পর্তুগাল। এছাড়া, একটি করে ম্যাচ হবে আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে ও প্যারাগুয়েতে।

বুধবার এক বিবৃতিতে আগামী ২০৩০ বিশ্বকাপের স্বাগতিক দেশগুলোর নাম ঘোষণা করেছে ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা। ইউরোপের স্পেন ও পর্তুগাল, আফ্রিকার মরক্কো এবং দক্ষিণ আমেরিকার আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে ও প্যারাগুয়েতে হবে ম্যাচগুলো।

বিশ্বকাপটির যৌথ আয়োজক হতে সম্মিলিতভাবে একমাত্র বিডটি করেছিল মরক্কো, স্পেন ও পর্তুগাল। সর্বসম্মতিক্রমে তাদেরকেই বেছে নিয়েছে ফিফা কাউন্সিল। বাছাইপর্বে খেলা ছাড়াই এই তিনটি দেশ সরাসরি বিশ্বকাপে অংশ নেবে।

শুধু তাই নয়। বিশ্বকাপের শতবর্ষ উপলক্ষে একটি করে উদ্বোধনী ম্যাচ আয়োজনের সুযোগ পেয়েছে আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে ও প্যারাগুয়ে। ১৯৩০ সালে বিশ্বকাপের প্রথম আসর বসেছিল উরুগুয়েতে। সেবার মন্তেভিদিওতে অবস্থিত এস্তাদিও সেন্তেনারিওতে আর্জেন্টিনাকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল উরুগুয়ে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, 'ফিফা কাউন্সিল সর্বসম্মতিক্রমে সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে (বিশ্বকাপের) একমাত্র প্রার্থী হবে মরক্কো, পর্তুগাল ও স্পেনের সম্মিলিত বিড। তারা ২০৩০ সালের আসরটি আয়োজন করবে। (বাছাইপর্বের মহাদেশভিত্তিক) বর্তমান বরাদ্দকৃত স্লট থেকে তারা সরাসরি (বিশ্বকাপে খেলার) যোগ্যতা অর্জন করবে।'

ফিফার বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, 'প্রথম বিশ্বকাপের ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপট বিবেচনায় নিয়ে, ফিফা কাউন্সিল সর্বসম্মতিক্রমে উরুগুয়ের রাজধানী মন্তেভিদিওতে একটি অনন্য শতবর্ষ উদযাপন অনুষ্ঠান আয়োজন করতে সম্মত হয়েছে। সেখানে ১৯৩০ সালে প্রথম ফিফা বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হয়েছিল। পাশাপাশি বিশ্বকাপের তিনটি ম্যাচ হবে যথাক্রমে উরুগুয়ে, আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়েতে।'

ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো বলেছেন, 'বিশ্বকাপের শতবার্ষিকী উদযাপনের জন্য এই তিনটি ম্যাচের প্রথমটি অবশ্যই সেই স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে, যেখানে এটা (বিশ্বকাপের উন্মাদনা) শুরু হয়েছিল, মন্তেভিদিওর এস্তাদিও সেন্তেনারিওতে।'

২০২২ সালে সবশেষ বিশ্বকাপ আয়োজিত হয়েছিল কাতারে। সেখানকার লুসাইল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত রোমাঞ্চকর ফাইনালে ফ্রান্সকে হারিয়ে শিরোপা উঁচিয়ে ধরেছিল আর্জেন্টিনা।

Comments