ঢাবি ক্যাম্পাসে ছাত্রদলকে ‘প্রতিহত’ করতে ‘প্রস্তুত’ ছাত্রলীগ

বিএনপির ছাত্র সংগঠন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ক্যাম্পাসে এসে ‘অস্থিতিশীল’ পরিস্থিতি তৈরি করতে পারে অভিযোগ তুলে তাদের প্রতিহত করতে ‘প্রস্তুত’ আছে বলে জানিয়েছে ছাত্রলীগ।
ছাত্রলীগ নেতা তানভীর হাসান সৈকতের নেতৃত্বে ক্যাম্পাসের কয়েকটি জায়গায় মোটরসাইকেল নিয়ে শোডাউন হয়। ছবি: সিরাজুল ইসলাম রুবেল/স্টার

বিএনপির ছাত্র সংগঠন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ক্যাম্পাসে এসে 'অস্থিতিশীল' পরিস্থিতি তৈরি করতে পারে অভিযোগ তুলে তাদের প্রতিহত করতে 'প্রস্তুত' আছে বলে জানিয়েছে ছাত্রলীগ।

আজ বৃহস্পতিবার সরেজমিনে দেখা গেছে, ঢাবি ক্যাম্পাসের কার্জন হল, দোয়েল চত্বর, টিএসসি, পলাশী মোড়, শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ, ঢাকা মেডিকেল কলেজ এলাকা ও নীলক্ষেত পয়েন্টসহ কয়েকটি স্থানে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা অবস্থান নিয়েছেন। সেসময় তাদের অনেকের হাতে লাঠিসোঁটা দেখা গেছে।

কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সদ্য সাবেক উপ-সমাজসেবা সম্পাদক তানভীর হাসান সৈকত দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা ঢাবি ক্যাম্পাসে এসে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরি করতে পারে। অতীতেও আমরা তাদের এ ধরনের কর্মকাণ্ড দেখেছি। তাই সাধারণ শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ও বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি এড়াতে ছাত্রলীগ প্রস্তুত আছে।'

অস্থিতিশীল পরিস্থিতি এড়াতে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী মাঠে আছে। এই দায়িত্ব ছাত্রলীগের কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, 'আমরা জনগণের করের টাকায় পড়াশোনা করছি। সেই দায়বদ্ধতার জায়গা থেকেই নিরাপত্তা নিশ্চিতে আমরাও মাঠে আছি। যাতে কোনো ধরনের বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি না ঘটে।'

সরেজমিনে আরও দেখা গেছে, সৈকতের নেতৃত্বে ক্যাম্পাসের কয়েকটি জায়গা মোটরসাইকেলে করে শোডাউন করা হয়েছে।

ঢাবি ক্যাম্পাসে অবস্থান নিয়ে আছেন ছাত্রলীগ কর্মীরা। ছবি: সিরাজুল ইসলাম রুবেল/স্টার

এদিকে, গতকাল পল্টনে 'পুলিশি হামলায়' ১ জন নিহত হওয়ার ঘটনায় মৌন প্রতিবাদ জানাতে আজ অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে অবস্থান কর্মসূচি ঘোষণা করেছে ঢাবির বিএনপিপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন সাদা দল। একইস্থানে আজ আলোকচিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করেছেন তানভীর হাসান সৈকত।

এ বিষয়ে তানভীর হাসান সৈকত বলেন, '২০১৪ সালে বিএনপির হামলায় কী কী ক্ষতি হয়েছে, তা তুলে ধরতে আমরা অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে এই আলোকচিত্র প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করেছি। এতে আমাদের শিক্ষকদেরও মনে পড়বে যে, বিএনপি তখন কী করেছিল।'

যে জায়গায় শিক্ষকদের সংগঠন সাদা দল কর্মসূচি দিলো গতকাল রাতে, একই স্থানে আলোকচিত্র প্রদর্শনীর বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, 'ঢাবি ক্যাম্পাস গণতান্ত্রিক জায়গা। সেখানে যে কেউই শান্তিপূর্ণভাবে যেকোনো কর্মসূচির আয়োজন করতে পারে। সাদা দলের শিক্ষকরা তাদের মতো করে কর্মসূচি পালন করবেন। আমরা আমাদের প্রদর্শনী করব।'

এ বিষয়ে সাদা দলের আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. লুৎফর রহমান ডেইলি স্টারকে বলেন, 'ঢাবি ক্যাম্পাস গণতান্ত্রিক জায়গা। তারা তাদের কর্মসূচি আয়োজন করেছে। আমরা আমাদেরটা পালন করছি। পৌনে ১২টা থেকেই আমরা আমাদের প্রতিবাদ কর্মসূচি শুরু করেছি।'

ঢাবি ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগের অবস্থান বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আরিফুল ইসলাম ডেইলি স্টারকে বলেন, 'ছাত্রদল কখনো সন্ত্রাসের রাজনীতি করে না। এই কাজ করে ছাত্রলীগ। তা ছাড়া, ক্যাম্পাসে কোনো ধরনের কর্মসূচির নির্দেশনা আমরা পাইনি। সুতরাং ছাত্রলীগের অভিযোগ মিথ্যা-বানোয়াট। আর তা ছাড়া যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলায় তো আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী আছে। ছাত্রলীগ প্রতিহত করার কে? এটা কি ছাত্রলীগের কাজ?'

Comments

The Daily Star  | English

Elevated expressway to open to public only after curfew is lifted

The Dhaka Elevated Expressway will remain closed to public until the government lifts the curfew fully, the operating company said today

31m ago