৪ দিনের মধ্যে ৪ দফা দাবি পূরণের আশ্বাসে হলে ফিরলেন চবি ছাত্রীরা

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ভিসির বাসভবনের সামনে অবস্থানরত ছাত্রীরা ৪ দফা দাবি পেশ করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে।
বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরিয়াল বডি এবং রেজিস্ট্রার এস এম মনিরুল ইসলাম ৪ দিনের মধ্যে দাবি মেনে নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন। ছবি: স্টার

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ভিসির বাসভবনের সামনে অবস্থানরত ছাত্রীরা ৪ দফা দাবি পেশ করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরিয়াল বডি এবং রেজিস্ট্রার এস এম মনিরুল ইসলাম ৪ দিনের মধ্যে এসব দাবি মেনে নেওয়ার আশ্বাস দিলে বুধবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে হলে ফিরে যান তারা।

তবে নির্ধারিত সময়ে দাবি মানা না হলে আবারও আন্দোলন করবেন বলে জানিয়েছে ছাত্রীরা।

এই ৪ দফা দাবি হচ্ছে-

১. ক্যাম্পাসে ২৪ ঘণ্টা নিরাপত্তা দিতে হবে। হল থেকে বের হওয়া বা প্রবেশের এবং মেডিকেলে যাওয়ার সময়সীমা তুলে দেওয়ার নির্দেশনা দিতে হবে।

২. যৌন নিপীড়ন সেল ভেঙে নতুন কার্যকরী সেল গঠন করতে হবে। সেলে বিচারের ব্যবস্থা করার জন্য সর্বোচ্চ সময়সীমা থাকবে ১ মাস। সেটি না হলে সেলের শাস্তির বিধান গঠনতন্ত্রে থাকবে।

৩. যৌন নিপীড়ন সেলে চলমান কেসগুলোর বিচার করতে হবে আগামী ৪ কার্যদিবসের মধ্যে।

৪. ৪ কার্যদিবসের মধ্যে বিচার না হলে প্রক্টরিয়াল বডি স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করবে।

বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন কেন্দ্রীয় সংসদের একাংশের কার্যকরী সদস্য ও পদার্থবিদ্যা বিভাগের শিক্ষার্থী আশরাফী নিতু দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'তারা (কর্তৃপক্ষ) ৪ দফা দাবি মেনে নিয়ে কাগজে সাইন করেছেন। সেখানে বলা আছে, ৪ কার্যদিবসের মধ্যে যৌন নির্যাতন ও নিপীড়ন বিরোধী সেলের যতগুলো অমীমাংসিত কেস আছে, সবগুলোর সমাধান করতে হবে। না করতে পারলে প্রক্টরিয়াল বডি পদত্যাগ করবে। আর যদি সেটা না করে, তাহলে কীভাবে করতে হয় তা আমরা দেখব।'

শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের বিচার এবং নিরাপদ ক্যাম্পাসের দাবিতে বুধবার রাতে চবি ভিসির বাসভবনের সামনে অবস্থান নেন ছাত্রীরা।

রাত ৯টার দিকে প্রথমে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রীতিলতা হলের ছাত্রীরা বের হয়ে হলের সামনে থেকে শহীদ মিনারের দিকে যেতে চাইলে প্রক্টরিয়াল বডি তাদের বাধা দেয়। এরপর অন্য ৩টি হল থেকে ছাত্রীরা এসে প্রীতিলতা হলের ছাত্রীদের সঙ্গে যোগ দেন। পরে তারা সবাই ভিসির বাসভবনের সামনে অবস্থান নেন।

এ সময় শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের ঘটনায় দোষীদের শাস্তি ৪ দিনের মধ্যে নিশ্চিত না করতে পারলে এবং ছাত্রীদের না মানা হলে পদত্যাগের ঘোষণা দেন চবি রেজিস্ট্রার এস এম মনিরুল ইসলাম।

রাত সাড়ে ১১টার দিকে ভিসির বাসভবনের সামনে অবস্থানরত ছাত্রীদের সামনে এ ঘোষণা দেন তিনি।

গত রোববার রাতে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বোটানিক্যাল গার্ডেনে চবির ওই শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়ন করেন ৫ যুবক।

আজ বিকেলে হাটহাজারী মডেল থানায় অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে ভুক্তভোগী ওই শিক্ষার্থী মামলা করেন বলে জানিয়েছেন হাটহাজারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রুহুল আমিন।

Comments

The Daily Star  | English

Cyclone disrupts 10,000 telecom towers, leaving millions out of mobile service

Power outage due to cyclone Remal has caused over 10,000 mobile towers or base transceiver stations (BTS) to go out of service, affecting the mobile and internet services of millions of people in the southern districts

56m ago